ঝালকাঠিতে চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে মুক্তিযোদ্ধাকে লাঞ্চিত করার অভিযোগ


২৪ ঘন্টা বার্তা   প্রকাশিত হয়েছেঃ   ১ মার্চ, ২০২১

ঝালকাঠি প্রতিবেদক:::ঝালকাঠিতে ভৈরবপাশা ইউপি চেয়ারম্যান নাসির উদ্দিন আহমেদের বির“দ্ধে পার্শ্ববর্তী সদর উপজেলার নথুল্লাবাদ ইউনিয়নের নথুল্লাবাদ গ্রামের বীর মুক্তিযোদ্ধা মোঃ আলাউদ্দিন খানকে লাঞ্চিত করার অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ বিষয়ে প্রধানমন্ত্রী, ঝালকাঠির সংসদ সদস্য সাবেক মন্ত্রী জাতিয় নেতা আলহাজ¦ আমির হোসেন আমু এমপি, ডিআইজি, জেলা প্রশাসক, পুলিশ সুপার বরাবরে ভুক্তভোগী বীর মুক্তিযোদ্ধা আলাউদ্দিন খান বাদি হয়ে ঝালকাঠি জেলার নলছিটি উপজেলার ভৈরবপাশা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান ও ভৈরবপাশা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি নাসির উদ্দিন আহমেদ এর বির“দ্ধে লিখিত অভিযোগ দিয়েছে। লিখিত অভিযোগ সুত্রে জানা গেছে, নথুল্লাবাদ গ্রামে মালি বাড়ি সংলগ্ন খালের উপর একটি ব্রীজের কাজ চলাকালিন সময়ে চেয়ারম্যান নাসির উদ্দিন ওই কাজের ঠিকাদার হিসেবে ওই মুক্তিযোদ্ধার রোপনকৃত মেহগিনি, চাম্বুল সহ বিভিন্ন প্রজাতির লক্ষাধিক টাকার গাছ কেটে সাবাড় করে ফেলে।তখন মুক্তিযোদ্ধা আলাউদ্দিন বাঁধা দিলে তাকে ক্ষতিপূরন দেওয়ার কথা বলে ভৈরবপাশা ইউনিয়ন পরিষদে আসতে বলে তখন মুক্তিযোদ্ধা আলাউদ্দিন ও তার সাথে খলিলুর রহমানকে সাথে নিয়ে ভৈরবপাশা ইউনিয়ন পরিষদে গেলে তখন শারীরিকভাবে লাঞ্চিত করে চড় থাপ্প্ড় মারে এবং গায়ে থাকা পানজাবি ছিড়ে ফেলে। এমনকি চেয়ারম্যান নাসির উদ্দিন আহমেদ নিজে একটি ছাতা দ্বারা এলোপাতারিভাবে মারধর করে। তখন ভৈরবপাশা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারন সম্পাদক কামাল বেপারীর ¯’ক্ষেপে বীর মুক্তিযোদ্ধা আলাউদ্দিন খান প্রাণে রক্ষা পায়। এ নিয়ে ঝালকাঠির বীর মুক্তিযোদ্ধারা ক্ষোভে ফেঁটে পড়ে এবং তারা তীব্র নিন্দা জানিয়ে দ্রুত বিচারের দাবী জানান নইলে জেলার বীর মুক্তিযোদ্ধারা বড় ধরনের আন্দোলন করার হুঁশিয়ারী উ”চারন করেন। বীর মুক্তিযোদ্ধা আলাউদ্দিন যদি এ বিষয়ে কোন বিচার না পান তাহলে আত্মহননের পথ বেঁচে নিবে বলে সাংবাদিকদের জানান। এ বিষয়ে নিজেকে ঝালকাঠি জেলা মুক্তিযোদ্ধা সন্তান কমান্ডের সভাপতি দাবি করে ইউপি চেয়ারম্যান নাসির উদ্দিন আহমেদ মুঠোফোনে এ সকল অভিযোগ অস্বীকার করেন।